Pages

Categories

Search

আজ- রবিবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮

‘সাংবিধানিক ভিত্তির ওপরই বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠা’ – ব্যারিস্টার আমীর-উল-ইসলাম

গাজীপুর দর্পণ রিপোর্ট: ব্যারিস্টার আমীর-উল-ইসলাম বলেছেন, দীর্ঘ নয় মাসের সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে বাংলাদেশ শ্বাধীন হলেও, এর ভিত্তি ছিল ১৯৭০ এর নির্বাচন ও ১৯৭১ এর ১০ এপ্রিল নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিদের কর্তৃক গৃহীত শ্বাধীনতার সাংবিধানিক ঘোষণাপত্র।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় আয়োজিত ‘শ্বাধীন বাংলাদেশের অভ্যুদয়ের ইতিহাস’ বিষয়ে কলেজ শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ কর্মশালার ৩য় দিনে বৃহস্পতিবার বিশিষ্ট আইনবিদ ও সংবিধান বিশেষজ্ঞ ব্যারিস্টার আমীর-উল-ইসলাম রিসোর্স পার্সন হিসেবে মুক্তিযুদ্ধ সংশ্লিষ্ট বিষয়ের উপর বিশদভাবে আলোচনা করেন। এছাড়াও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. এম এম আকাশ রিসোর্স পার্সন হিসেবে আলোচনা করেন।

ড. এম এম আকাশ তার আলোচনায় বলেন, “পাকিস্তান এক উদ্ভট ভৌগোলিক এলাকা নিয়ে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। শ্বাধীন বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার সকল উপাদান শুরুতেই এর মধ্যে বিদ্যমান ছিল । জন্মই যেন ছিল এ রাষ্ট্রের আজন্ম পাপ। পাকিস্তানের শাসক গোষ্ঠীর শাসন-শোষণ ও জাতি নিপীড়ন শ্বাধীন বাংলাদেশের অভ্যুদয়কে ত্বরাম্ভিত করেছিল মাত্র। সার্বিক বিবেচনায় ২৪ বছর রাষ্ট্র হিসেবে পাকিস্তান টিকে থাকাই ছিল বিস্ময়কর।”

এই অনুষ্ঠানে কোর্স উপদেষ্টা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. হারুন-অর-রশিদ ।