Pages

Categories

Search

আজ- শুক্রবার ১৬ নভেম্বর ২০১৮

শ্রীপুর – বরমী বেহাল সড়ক, ঝুঁকি নিয়ে চলছে যানবাহন

অগাষ্ট ৭, ২০১৫
এক্সক্লুসিভ, শ্রীপুর
No Comment

road_3
বশির আহমেদ কাজল, শ্রীপুর :
গাজীপুরের শ্রীপুর বরমী সড়কের ৮ কি: মি: রাস্তা ভরে গেছে খানাখন্দে। স্থানে স্থানে সৃষ্টি হয়েছে গভীর খাদের। ঝুঁকিপূর্ন অবস্থায় চলছে শতশত যানবাহন ও যাত্রী।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, গাজীপুর জেলার বন্দর খ্যাত শীতলক্ষ্যা বানার নদীর তীরবর্তী বরমী বাজারের সাথে ঢাকার সংযোগ রক্ষাকারী শ্রীপুর বরমী সড়কের বেহাল দশা। আঞ্চলিক এ সড়কে শ্রীপুর চৌরাস্তা থেকে বরমী বাজার পর্যন্ত ৮ কি: মি: জুড়েই খানাখন্দের সৃষ্টি হওয়ায় যান চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। শ্রীপুর চৌরাস্তার উত্তর পার্শ্বে, এড: মামুন খান মার্কেটের সামনে, বড় পানি এলাকা, বরামা চৌরাস্তার উত্তরে বরমী বাসষ্ট্যান্ড থেকে বাজার পর্যন্ত রাস্তাসহ বেশ কয়টি স্থানে সৃষ্টি হয়েছে গভীর খাদের। ২-৩ ফুট গর্ত এসব খাদে বর্ষার কাদা পানিতে অনেক সময় বাধাগ্রস্থ হয় যান চলাচল। ঈদের পূর্বে ইটা বালি দিয়ে খানা খন্দ ভরাট করা হয়। ঈদের পর থেকে টানা বর্ষনে ইটা বালি সড়ে যাওয়ায়  খানাখন্দের পরিমান আরো বেড়ে গেছে। সড়কে প্রতিদিন অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ন অবস্থায় চলাচল করে শতশত যাত্রী ও পণ্যবাহী যানবাহন। খাদে পড়ে প্রতিনিয়তই আটকে যায় যানবাহন বিড়ম্ভনায় পড়ে যাত্রীরা। এদিকে বৃষ্টি হলেই ইটের টুকরো ফেলে গর্ত ভরাটের ব্যর্থ চেষ্টা চলে। এলাকাবাসীর অভিযোগ, বরমী বাজার এলাকার বিভিন্ন বালু মহাল ও ইট খলা থেকে রাত দিন শতশত ট্রাক লড়ি ধারণ ক্ষমতার কয়েকগুন বেশী ইটা বালি নিয়ে চলাচল করে। এতে সড়কটি সংস্কারের পরই দ্রুত যান চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে কার্যকরী ব্যবস্থা না নেয়ায় অতি বোঝাই যানবাহন চলছে নির্বিঘে। বর্তমান অবস্থা চলতে থাকলে যে কোন সময় যান চলাচল একেবারেই বন্ধ হয়ে যাবে। শ্রীপুর উপজেলার প্রকৌশলী আ: রাজ্জাক জানান, দ্রুত দরপত্র আহŸান করে রাস্তার কাজ করা হবে। শ্রীপুর উপজেলার নির্বাহী অফিসার মো: মোস্তাফিজুর রহমান জানান, সরেজমিনে তদন্ত করে অতি ভাড়ী যান চলাচলের বিষয়ে কার্যকরী ব্যবস্থা নিবেন।