Pages

Categories

Search

আজ- সোমবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮

রাণীনগরে মাদ্রাসার কক্ষ থেকে হাত বাঁধা ছাত্রের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

আব্দুর রউফ রিপন, নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁর রাণীনগর উপজেলার ঘোষগ্রাম কফিলিয়া নূরানী হাফেজিয়া মাদ্রাসা ও শিশু সদন এর শ্রেণি কক্ষ থেকে মো: আবু হাসান সিজান (১৮) নামের এক মাদ্রাসা ছাত্রের মাটিতে পা ঠেকানো হাত বাঁধা গলায় রুমাল পেচানো ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে রাণীনগর থানা পুলিশ।
স্থানীয়দের দেওয়া সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ গত সোমবার দিবাগত রাত অনুমান ১২টার দিকে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। আবু হাসান সিজান উপজেলার গোনা ইউনিয়নের ঘোষগ্রামের ডা: আব্দুর বারিকের ছেলে। সে ঘোষগ্রাম কফিলিয়া হাফেজিয়া নূরানী মাদ্রাসা ও শিশু সদন এর কিতাব বিভাগের দশম শ্রেণির ছাত্র ও বেদগাড়ী পাড় ঘাট মসজিদের ইমাম।
সিজানের বাবা ডা: আব্দুর বারিক জানান, প্রতিদিন আমার ছেলে মাদ্রাসার ক্লাস শেষে রাত অনুমান ৯টার সময় সাইকেল নিয়ে বাড়ি ফিরতো। কিন্তু গত সোমবার দিবাগত রাত সাড়ে ১০টার পরেও সিজান বাড়িতে না যাওয়ার কারণে তার মা মাদ্রাসায় আসে সিজানের খোঁজ নিতে। মাদ্রাসায় অনেক খোজা-খুজির পড়ে সিজানের সাইকেল দেখতে পায় তা মা। এরপর মাদ্রাসার পরিত্যক্ত নুরানী ক্লাস রুমে মাটিতে পা ঠেকানো হাত বাঁধা গলায় রুমাল পেচানো একটি ঝুলন্ত লাশ দেখতে পায় তার মা। পরে থানায় খবর দিলে পুলিশ সোমবার দিবাগত রাত অনুমান ১২টার দিকে আবু হাসান সিজানের সিজানের লাশ উদ্ধার করে। তবে সিজানের এই মৃত্যু এলাকার মানুষের মাঝে ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনার জন্ম দিয়েছে। সিজানের এই মৃত্যু হত্যা না আত্মহত্যা তা রয়ে গেছে রহস্যঘেরা প্রাচীরের মাঝে। স্থানীয়রা জানান, কোন কারণে সিজানের শত্রæরা সিজানকে পরিকল্পনা মাফিক হত্যা করে মাদ্রাসার এই পরিত্যক্ত কক্ষে ঝুলিয়ে রেখে চলে গেছে।
রাণীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ.এস.এম সিদ্দিকুর রহমান জানান, খবর পাওয়ার পর পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে সিজানের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নওগাঁ আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। সিজানের পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় একটি ইউডি মামলা করা হয়েছে। তিনি আরো জানান প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য মাদ্রাসার ৪ শিক্ষার্থীকে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। আমরা অতিদ্রæত সিজানের এই মৃত্যুর কারণ খুজে বের করতে পারবো।