Pages

Categories

Search

আজ- বুধবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮

রাণীনগরে ডাকাতি নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট, মা-ছেলে আহত, আটক-২


আব্দুর রউফ রিপন, নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁর রাণীনগরে ডাকাতি সংঘটিত হয়েছে। শুক্রবার দিনগত রাতে উপজেলার পারইল ইউপি’র বানিয়াপাড়া গ্রামে লোকমান হোসেনের বাড়িতে এ ঘটনাটি ঘটেছে। ডাকাতরা বাড়ির মূল গেটের তালা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে বাড়ির সকল সদস্যদের দেশীয় অস্ত্রের মুখে জিম্মি ও মারপিট করে নগদ টাকা স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোন, দামি কাপড় চোপড়সহ প্রায় ৭ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে। ডাকাতদের মারপিটে গৃহকর্তার স্ত্রী ছামেনা বেগম (৫০) ও তার ছেলে টুটুল (২৫) আহত হয়েছে। এরমধ্যে ছামেনা বেগমকে স্থাণীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ এনামুল (৪০) ও মানিক (২২) নামের ২ জনকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে।
রানা হোসেন টুটুল জানায়, শুক্রবার রাত আনুমানিক ১ টার দিকে ১৫/২০ জন মুখোশধারীসহ ৩০-৪০ জনের সশস্ত্র ডাকাত দল তার বাড়ির মূল গেটের তালা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে। এসময় তার দরজা খোলা থাকায় ৭/৮ জন ডাকাত ঘরের মধ্যে ঢুকে তাকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে তার বাবা লোকমান হোসেনকে দরজা খোলার জন্য বলতে বাধ্য করে। এসময় টুটুল বাড়ীতে ডাকাত উঠেছে বলে চিৎকার করলে ডাকাতরা তাকে মারপিট করে। ছেলের চিৎকারে মা ছামেনা বেগম ছুটে আসলে ডাকাতরা তাকেও মারপিট করে।
গৃহকর্তা লোকমান হোসেন জানান, ছেলের ডাকে ঘরের দরজা খুলে দিলে ১০/১২ জন ডাকাতরা ভেতরে ঢুকে তার চোখ বেঁধে রাখে। বাইরে ডাকাতরা তার ছেলে ও স্ত্রীকে মারপিট করতে ছিল। প্রায় ৩০/৪০ জন ডাকাত দল দেশীয় অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে রেখে তার ঘরের বাক্সের তালা ভেঙ্গে নগদ ৬ লাখ ৪১ হাজার টাকা, ১ ভরি স্বর্ণালংকার, ৩টি মোবাইল ফোন, মূল্যবান কাপড় চোপড়সহ প্রায় ৭ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে। ডাকাতদের মারপিটে আহত ছেলেকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। তার স্ত্রীকে স্থাণীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
রাণীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মোস্তাাফিজুর রহমান জানান, ঘটনাটি প্রাথমিক ভাবে রহস্যজনক বলে প্রতীয়মান হচ্ছে। তবে বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই শফিকুর রহমান জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হচ্ছে।