Pages

Categories

Search

আজ- বৃহস্পতিবার ১৫ নভেম্বর ২০১৮

রংপুরে সন্তান হত্যার অভিযোগ মায়ের ফাঁসি

সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৬
অপরাধ, ফাঁসি, বিচার, রংপুর, শীর্ষ সংবাদ, হত্যা
No Comment

rangpur_photo__28-09-20161

হারুন উর রশিদ সোহেল, রংপুর প্রতিনিধি: রংপুরে এক বছরের নিজ কন্যাসন্তান লাকি খাতুনকে গলাটিপে হত্যার অভিযোগে মা রাহেলা খাতুনের (৩০) ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত। বুধবার (২৮ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১ টায় অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত-২ এর বিচারক আবু জাফর মো. কামরুজ্জামান এ রায় দেন। রায় ঘোষণার সময় অভিযুক্ত রাহেলা খাতুন আদালতে উপস্থিত ছিলেন। এদিকে মামলা ও আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০০২ সালে রংপুরের গঙ্গাচড়া উপজেলার মহিপুর পূর্বপাড়া গ্রামের বাবুল মিয়ার ছেলে লাবলু মিয়ার সঙ্গে একই উপজেলার জয়দেব সরকারপাড়া গ্রামের আব্দার রহমানের মেয়ে রাহেলা খাতুনের বিয়ে হয়। বিয়ের পর তাদের সংসারে জন্ম হয় লাকী খাতুনের।
ঘটনার কয়েকদিন আগে স্বামীর বাড়ি থেকে বাবার বাড়ি বেড়াতে যান রাহেলা। এরপর ঘটনার দিন ২০০৪ সালের ১২ সেপ্টেম্বর রাতের কোনো এক সময় পারিবারিক বিরোধের জেরে নিজ শিশু সন্তান লাকীকে গলাটিপে হত্যা করে। পরে তার মরদেহ বাড়ির পাশে ডোবাতে ফেলে দেন মা রাহেলা খাতুন। এঘটনার পরদিন সকালে বাড়ির লোকজনসহ স্থানীয়রা লাকীর মরদেহ ডোবাতে ভাসতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজের ফরেনসিক বিভাগে পাঠিয়ে দেন। এ ঘটনায় ২০০৪ সালের ১লা অক্টোবর স্বামী লাবলু মিয়া বাদী হয়ে সন্তান হত্যার অভিযোগে স্ত্রী রাহেলা খাতুনকে আসামি করে গঙ্গাচড়া থানায় একটি হত্যা মামলা করেন। দীর্ঘ ১২ বছর মামলাটি আদালতে বিচারাধীন থাকার পর বুধবার এর রায় ঘোষণা করা হয়। বাদী পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর (এপিপি) ফারুক মো. রেয়াজুল করিম। রায়ের প্রতিক্রিয়ায় আসামি পক্ষের আইনজীবী অ্যাড. আফজালুল ইসলাম বলেন, তারা এ রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করবেন।