Pages

Categories

Search

আজ- শুক্রবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮

যৌতুক দিতে অস্বীকার করায় কালিয়াকৈরে গৃহবধুকে নির্যাতন

20160517_1017351গাজীপুর দর্পণ রিপোর্ট:
যৌতুক লোভী পাষন্ড স্বামী আনোয়ার হোসেনের নির্যাতনের স্বীকার কালিয়াকৈর উপজেলার বড়ইছুটি গ্রামর গৃহবধু শিলা আক্তার। দাবিকৃত টাকা দিতে অস্বীকার করায় গাজীপুর জেলার কালিয়াকৈর উপজেলার বড়ইছুটি এলাকার ইয়াছিন আলীর পুত্র আনোয়ার হোসেনের বিরুদ্ধে বিচারের দাবিতে গৃহবধু শিলা আক্তার গাজীপুর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালতে মামলা করবে।

দুই বছর আগে একই উপজেলার গোয়াল বাথান গ্রামের মো: ছালাম উদ্দিনের মেয়ে শিলা আক্তারের সাথে পারিবারিক ভাবে আনোয়ার হোসেনের বিয়ে হয়।

মঙ্গলবার গাজীপুর আদালত চত্তরে কথা হয় নির্যাতনের স্বীকার গৃহবধু শিলা আক্তার ও তার পরিবারের সদস্যদের সাথে। গৃহবধু গাজীপুর দর্পণকে জানান, বেশ কিছুদিন যাবৎ স্বামী আনোয়ার হোসেন এক লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে আসছিল। গত ১১ মে গভীর রাতে স্বামী আনোয়ার হোসেন স্ত্রী শিলা আক্তারের কাছে টাকা দাবি করে। টাকা দিতে অস্বীকার করায় লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। এবং রশি দিয়ে গলায় পেচিয়ে হত্যার চেষ্টা করে।

নির্যাতনের সময় শ্বশুর ইয়াছিন আলী ও শ্বাশুরি রাশেদা বেগম প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ ভাবে আনোয়ার হোসেনকে উৎসাহ যোগায় বলে শিলা আক্তার অভিযোগ করেন।

পরদিন শিলাকে কালিয়াকৈর স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে ভর্তি করে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

শিলা আক্তারের বাবা মো: ছালাম উদ্দিন জানান, মেয়েকে এতো বেশী নির্যাতন করেছে যে এখন সোজা হয়ে হাঁটতে পারেনা। মেয়ের সুখের কথা চিন্তা করে বিয়ের সময় এক লাখ টাকার বিভিন্ন জিনিস পত্র দিয়েছি। থানা পুলিশ মামলা না নেয়ায় আদালতে এসেছি।

সিনিয়র আইনজীবি ইসমাইল হোসেন খান বলেন, আদালতের বিচারক না থাকায় দেরি হচ্ছে। আগামী রোববার মামলার কার্যক্রম শুরু হবে।