Pages

Categories

Search

আজ- শুক্রবার ১৬ নভেম্বর ২০১৮

নিয়ামতপুর টু ধানসুরা ২৫ কি: রাস্তার বেহাল দশা

জুন ২০, ২০১৮
জনদুর্ভোগ, নওগাঁ
No Comment


মান্দা-নিয়ামতপুর (নওগাঁ) সংবাদদাতাঃ নওগাঁর নিয়ামতপুর উপজেলার থানার মোড় থেকে ধানসুরা পর্যন্ত ২৫ কিলোমিটার পাঁকা রাস্তা খানা খন্দে ভরা একটু বৃষ্টিতেই পানি জমে ফলে যানবাহন চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। দীর্ঘদিন যাবত রস্তাটি সংস্কারের অভাবে বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়ে মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে। যে কোন সময় বড় ধরনের দুর্ঘটনার সম্মুখীন হতে পারে। সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায় নিয়ামতপুর উপজেলার থানার মোড় থেকে ধানসুরা পর্যন্ত ২৫ কিলোমিটার পাঁকা রাস্তা শতশত গর্তের সৃষ্টি হওয়ার কারনে ভারী যানবাহন চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। ধানসুরা থেকে নিয়ামতপুরে আসার পথে বাস, ভ্যান, সিএনজি অটোবাইক সহ বিভিন্ন হালাকা ও ভারী যানবাহন প্রতিদিন জীবনের ঝুঁকি নিয়ে রাস্তায় চলাচল করছে। যেখানে ধানসুরা থেকে নিয়ামতপুর আসতে সর্বোচ্চ ৩০ মিঃ সময় লাগার কথা সেখানে দেড় ঘণ্টা সময় লাগে। জরুরী ভিত্তিতে কোন রোগী হাসপাতালে নিতে হলে তড়িৎ গতিতে নেওয়া সম্ভব হয় না। ফলে রাস্তাায় ঘটতে পারে যে কোন দুর্ঘটনা। ২০০৭ সালে নিয়ামতপুর টু ধানসুরা রাস্তাটি স্থানীয় প্রকৌশলী অধিদপ্তর থেকে সড়ক ও জনপথ বিভাগ রাস্তাটি নিয়ে নেয়। নেওয়ার পর থেকে সামান্য জায়গায় হালকা কার্পেটিং ছাড়া বড় কোন কাজ হয়নি। ধানসুরা মোড়ের বাস চালক জানান আমরা বড় ঝুঁকি নিয়ে রাস্তায় চলাচল করছি যে কোন সময় আমাদের বিপদ হতে পারে কিন্তু এত কিছু জেনেও পেটের দায়ে ঝুঁকি নিয়ে ভাঙ্গা রাস্তায় গাড়ী চালাচ্ছি। বরেন্দ্র বাজারের ডেকারেটর ব্যবসায়ী সিদ্দিক বার্বুচী জানান, তিন বৎসর যাবত এই রাস্তার অবস্থা একই থাকার দরুন আমাদের দোকানের সামনে বড় বড় খানাখন্দে সৃষ্টি হয়েছে। গাঙ্গর গ্রামের মৃক্তাকুর রহমান জানান এই রাস্তাটি অনেকদিন যাবত খানা খন্দে ভরা একটু বৃষ্টি হলেই যানবাহন চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে। এ বিষয়ে নিয়ামতপুর উপজেলা চেয়ারম্যান এনামুল হক কে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন আমি এই রাস্তাটি নিয়ে জেলা সমন্বয় মিটিংয়ে উত্থাপন করেছি অচিরেই কাজ শুরু হবে। নওগাঁ জেলা সড়ক ও জনপদ এর প্রধান হামিদুল হক এর সাথে কথা হলে তিনি জানান, মে মাসে রাস্তাটি মেরামতের জন্য বরাদ্দ চেয়েছি, বরাদ্দ আসলে টেন্ডারের মাধ্যমে রাস্তাটি সংস্কার করা হবে।