Pages

Categories

Search

আজ- মঙ্গলবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

নরসিংদী বিএনপিতে নেই ত্যাগী নেতাদের মূল্যায়ন

নভেম্বর ৩, ২০১৬
নরসিংদী, রাজনীতি
No Comment

bnp-flag

নূরে-আলম রনী, নরসিংদী প্রতিনিধিঃ
নরসিংদীর জেলা বিএনপির একসময়ের কর্ণদার যার অবস্থান ছিল প্রয়াত নেতা এমপি শামসুউদ্দিন আহম্মেদ এছাক সাহেবের পরের স্থান। তিনি আজ অবহেলিত। জাতীয় রাজনীতি থেকে শুরু করে জেলা পর্যন্ত ছিল তার অবস্থান। নরসিংদী সরকারী কলেজের প্রথম ভিপি, নরসিংদী জেলা ছাত্রদলের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি শহীদ জিয়ার ঘনিষ্টবাজন ভিপি জলিল থেকে শুরু করে, নরসিংদী সরকারী কলেজের দুই বারের ভিপি তারেক আহম্মেদ, দুই বারের জেলা ছাত্রদলের সভাপতি ও দুই বারের নরসিংদী সরকারী কলেজের ভিপি স্বরণ কালের শ্রেষ্ঠ জনপ্রিয় ছাত্র নেতা খবিরুল ইসলাম বাবুল, ভিপি শফিকুল ইসলাম আপেল, ভিপি ইলিয়াস, ভিপি মারুফ আব্দুল্লাহ জন, জিএস জগরুল কবির রিটন, দিপক কুমার বর্মণ প্রিন্স, আকরাম হোসেন সহ নরসিংদী সরকারী কলেজের অগনীত এজিএস রাজনীতিতে অবমুল্যায়নের কারণে হারিয়ে যাচ্ছে রাজনীতির অঙ্গণ থেকে। সেই সময়ে ছিল নরসিংদীর রাজনীতির এক অপরুপ দৃশ্য। যা ছিল স্বরণ কালের সর্বশ্রেষ্ঠ। মুল্যায়নের অভাবে সুযোগ নিচ্ছে দলের কিছু চাটুকার আর বিরুধী দলেরা। তখন কার সময়ে নরসিংদীর সাটেরপাড়া, বৌয়াকুর, রাঙ্গামাটিয়া, বাক্ষন্ধী সহ অনেক স্থান বিএনপির এলাকা নামে পরিচিত ছিল। কয়েকজন সিনিয়র নেতার সাথে কথা বললে খোভের সাথে জানান, নরসিংদীতে এখন বিএনপির ত্যাগী নেতার মুল্যায়ন নেই । দলে এখন হাইবিডের মুল্যায়ন বাড়ছে। যার ফলে ত্যাগী নেতাদের মনে চরম খোভ বিরাজ করছে। আমরা দলে আছি , দলেই থাকবে। শহীদ জিয়ার আদর্শে ও খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে। সাবেক জনপ্রিয় নেতাদের বাদ দিয়ে আগামী কমিটি গঠন করা হলে দলে থেকে যাবে গ্রæফিং। তাই নরসিংদীতে আগামী দিনের আন্দোলনকে শক্তিশালী করতে, সাবেক ছাত্র নেতাদেরকে মুল্যায়ন করে কমিটি করা হলে নরসিংদীর বিএনপিতে কোন গ্রæফিং থাকবেনা এবং কমিটি হবে অনেক শক্তিশালী। নরসিংদী জেলা যুবদলের সাবেক সভাপতি রোকনউদ্দিন রোকন বলেন, বিজি রশিদ নওশের , মুজাম্মেল হক সহ বিএনপি নামে যারা পরিচিত , হোসেন আলী, কাজী নিজাম, মিনারুল ইসলাম, শফিকুল ইসলাম, তাহের , হেলাল, মাহাবুব , আমান, সোহেল, মোস্তাক সহ কারো কোন মুল্যায়ন নেই। এসমস্ত নেতারাই রাজনীতিতে নরসিংদীর রাজপথ কাপাতেন। এরা মাঠে নামলে বিরুধী দলেরা আতংকে থাকতেন। আমাদের জীবন যৌবন , অর্থকড়ি দলের জন্য সব শেষ করেও কোন মুল্যায়ন পাইনি। আগামী কমিটি গুলো যেন সবাইকে নিয়ে সুন্দর ভাবে করা হয়। এটাই আমাদের প্রত্যাশা।