Pages

Categories

Search

আজ- শনিবার ১৭ নভেম্বর ২০১৮

নওগাঁর বদলগাছীতে গাছের সাথে শত্রুতা

ডিসেম্বর ২৫, ২০১৭
অপরাধ, আইন- আদালত, কৃষি, নওগাঁ, পরিবেশ
No Comment

আব্দুর রউফ রিপন, নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁর বদলগাছীতে দলিল লেখক সমিতিসহ একটি প্রভাবশালী মহল রাতে অন্ধকারে ২৭টি ফলজ আম গাছ কেটে আগুন জ্বালিয়ে দিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। রবিবার রাত ৮টার দিকে উপজেলা সদরের জিধিরপুর মৌজার টিএন্ডটি মোড় সংলগ্ন স্থানে এ ঘটনা ঘটে। সোমবার আম বাগানের মালিকের ছেলে জাহাঙ্গীর সেলিম বদলগাছী থানায় একটি অভিযোগ করেছেন।

স্থানীয় ও থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বদলগাছী উপজেলা সদরের কাদিরবাড়ি গ্রামের বাসিন্দা সেলিম হোসেনের উপজেলা সদরের জিধিরপুর মৌজার টিএন্ডটি মোড় সংলগ্ন দেড় বিঘা জমি রয়েছে। প্রায় একযুগ আগে তিনি তার জমিতে আম বাগান করেন। রবিবার রাত ৮টার দিকে বদলগাছী দলিল লেখক সমিতির কয়েকজন লোক এবং প্রভাশালী সুলতান জাহাঙ্গীর কয়েল তার ভাড়াটিয়া শতাধিক লোকজন নিয়ে জমিটি দখল করতে যায়। জমির মালিক খবর পেয়ে বিষয়টি থানা পুলিশকে জানালে পুলিশ তাদের থানায় আসতে বলে। কিন্তু তারা নির্দেশ অম্যান্য করে জমিতে গিয়ে ৪৭টি আম গাছের মধ্যে ১০ বছর বয়সি ২৭ টি ফলজ আম গাছ কেটে আগুন জ্বালিয়ে দেয়। পরে রাতেই ঘনটাস্থলে থানা পুলিশ গেলে তারা পালিয়ে যায়।

জমির মালিকের ছেলে জাহাঙ্গীর সেলিম জানান, উপজেলা জিধিরপুর মৌজার সাবেক এসএ খতিযান নম্বর ২০৭, সাবেক দাগ নম্বর ৪৪ এর কাতে মোট এক একর ২০ শতক। ১৯৭৫ সালে ৯ ডিসেম্বর ২৭২৫৫ নম্বর দলিল মুলে মৃত মসিতুল্লাহ কাজীর ওয়ারিশগনের কাছ থেকে মফিজ উদ্দিন মালিক হন। তার মধ্যে ৭০ শতক জমি সরকার অধিগ্রহন করে টিএন্ডটি অফিস স্থাপন করে। বাকি জমিতে মফিজ উদ্দিনের ওয়ারিশেরা আম বাগান করেন। সাথী ফসল হিসেবে সেই জমিতে ধানসহ বিভিন্ন ফসলাদী চাষাবাদ করে আসছি। কিন্তু প্রভাশালী সুলতান জাহাঙ্গীর কয়েল এবং দলিল লেখক সমিতির লোকজন দীর্ঘদিন থেকে জমিটি দখল নেয়ার চেষ্টা করে আসছিল। গাছগুলো কেটে ফেলায় তিনি এর সুষ্ঠু বিচার দাবী করেন।

অভিযুক্ত সুলতান জাহাঙ্গীর কয়েল এর মুঠোফোন বন্ধ থাকায় বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

বদলগাছী দলিল লেখক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মিলন হোসেন বলেন, জমিটি মূলত আমাদের না। এটি উপজেলা সাব-রেজিষ্টার অফিসের। সেখানে সাব-রেজিষ্টার অফিসের একটি ভবন নির্মাণ হবে। তবে দলিল লেখক সমিতি থেকে কেন লোকজন গিয়েছিল তার সদুত্তর তিনি দিতে পারেননি।

বদলগাছী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জালাল উদ্দিন বলেন, রাতের আধারে সুলতান জাহাঙ্গীর কয়েলকে জমিতে না যাওয়ার জন্য নিষেধ করা হয়েছিল। কিন্তু তিনি তা অমান্য করে গাছগুলো কেটে ফেলেছেন। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।