Pages

Categories

Search

আজ- শুক্রবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮

গোবিন্দগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানকে ফাঁসাতে মিথ্যা ধর্ষণের অভিযোগ

14-11
গোবিন্দগঞ্জ(গাইবান্ধা) প্রতিনিধিঃ গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে এবার এক বীর মুক্তিয়োদ্ধার সন্তানকে চাকুরী থেকে সরাতে মিথ্যা ধর্ষনের অভিযোগে তোলায়। এলাকাবাসীর বিশাল মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন। এঘটনায় এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।
এ উপলক্ষে ১৪/১১/ ১৬ ইং তারিখে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার কাটাবাড়ী ইউপি’র হামিদপুর পৃর্বপাড়া গ্রামে এলাকার বিপুল সংখ্যক নারী-পুরুষ সমাবেত হয়ে বিশাল এক মানব বন্ধন শেষে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে। উক্ত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুন্নবী সরকার বলেন, হামিদপুর পৃর্ব পাড়া গ্রামের মৃত্যু বীর মুক্তিযোদ্ধা শুকুর আলীর পুত্র রবিউল ইসলাম গত ১৯/১০/১১ইং সাল থেকে হামিদপুর কমিনিটি ক্লিনিকে এইস,সি,পি পদে চাকুরীতে যোগদান করে নিয়মিতি দায়িত্ব পালন করে আসার এক পর্যায়ে গত ১০/১১/১৬ইং তারিখে পৃর্ব শত্রæতার জের ধরে একই গ্রামের ইউছুব আলীর পুত্র জসিমুদ্দিনের নেতৃত্বে ১০/১২জন লোক অর্তকিত ভাবে বেলা ১২টার দিকে ক্লিনিকের ভিতরে ডুকে রবিউলকে টেনে-হেছড়ে বের করে বেদম মারপিট করে জোর পৃর্বক মোটর সাইকেলে তোলার চেষ্ট করে। এসময় তার চিৎকারে আশ-পাশের লোকজন এসে রবিউলকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। পরে উপস্থিত লোকজন কে জসিমুদ্দিন বলেন, রবিউল ইসলাম তার মেয়ে ৭ম শ্রেনীর ছাত্রী জেসমিন কে ধর্ষন করেছে। তিনি বলেন, মৃত্যু বীর মুক্তিযোদ্ধা শুকুর আলীর সাথে জসিমুদ্দিনের পূর্বে জের থাকায় তার মৃত্যুর পর ছেলেকে চাকুরী থেকে সরাতে মিথ্যা ধর্ষনের অভিযোগ করা হয়েছে। এ মিথ্যা অভিযোগের প্রতিবাদে আমরা এলাকাবাসী সংবাদ সম্মেলন ও মানব বন্ধন করে এ নিন্দা জানাচ্ছি। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন,আঃ রশিদ, শুকুর আলী, হজরত আলী, ছলিমুদ্দিন, দুদু মিয়া,আইয়ুব আলীসহ বিপুল সংখ্যক নারী-পুরুষ।