Pages

Categories

Search

আজ- মঙ্গলবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

গাজীপুর জেলা প্রশাসকের নিকট তালিকা দিয়েছেন সাহসী যোদ্ধা সমন্বয় পরিষদ

সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৮
গাজীপুর, মুক্তিযুদ্ধ
No Comment

 
গাজীপুর দর্পণ রিপোর্ট : গাজীপুরের ঐতিহাসিক ১৯ শে মার্চ ১৯৭১ এর সাহসী যোদ্ধা সমন্বয় পরিষদ ১৯৭১ সালের ১৯ মার্চ পাকিস্তান হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে তৎকালীন জয়দেবপুরে প্রথম সশস্ত্র প্রতিরোধের দিনটিকে এবং প্রতিরোধে অংশ নেয়াদের রাষ্ট্রীয় ও মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি চেয়েছে জেলা প্রশাসকের নিকট তালিকা দিয়েছেন। সোমবার গাজীপুরের জেলা প্রশাসক ডক্টর দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীরের নিকট ১৫৯ জনের এই তালিকা দেন।
১০ সেপ্টেম্বর সোমবার ১৯ শে মার্চ ১৯৭১ এর সাহসী যোদ্ধা সমন্বয় পরিষদের সভাপতি মো: অলিউল্লাহ হাওলাদারের নের্তৃত্বে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর নিকট এই তালিকা দেয়া হয়। এবিষয়ে মহানগরের চতর এলাকায় গত ৮ সেপ্টেম্বর শনিবার অনুষ্ঠিত এক সভায় ১৯৭১ সালের ১৯ মার্চ পাকিস্তান হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে প্রথম সশস্ত্র সম্মুখ প্রতিরোধ যুদ্ধে অংশ নেয়া যোদ্ধাদের এক সভা অনুষ্ঠিত হয়।
জেলা প্রশাসকের নিকট তালিকা দেয়ার সময় উপস্থিত ছিলেন সাহসী যোদ্ধা সমন্বয় পরিষদের সহ সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান সরকার ও আসাদুজ্জামান তরুন, সাধারন সম্পাদক শরীফ মোখলেছ, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক সিরাজ উদ্দিন ভূঁইয়া, কোষাধ্যক্ষ মোসলেম উদ্দিন বেপারী, দপ্তর সম্পাদক আ: মান্নান শেখ, প্রচার সম্পাদক আ: গনি মিয়া, সহ প্রচার সম্পাদক শাহা আলম ভূইঁয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক কাজী খালেক, সদস্য হাবিবুর রহমান, আবুল কালাম ভূইঁয়া, ফজলুল হক, দেওয়ার শরিফুল ইসলাম (কাবীল) ও মো: বাছির খান প্রমূখ।
সাহসী যোদ্ধা সমন্বয় পরিষদ ঐতিহাসিক ১৯ শে মার্চকে রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি, সশস্ত্র যোদ্ধাদের মুক্তিযোদ্ধা এবং বাংলাদেশ সরকারের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হককে ১৯ মার্চের মহানায়ক ঘোষণার দাবী জানানো হয়েছে।
গাজীপুরের জেলা প্রশাসক ডক্টর দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীর জানান, সাহসী যোদ্ধা সমন্বয় পরিষদের পক্ষ থেকে একটি তালিকা পেয়েছি, তালিকাটি প্রধানমন্ত্রীর দপ্তরে পাঠিয়ে দেয়া হবে। সরকার ঐতিহাসিক ১৯ শে মার্চকে রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি, সশস্ত্র যোদ্ধাদের মুক্তিযোদ্ধা ১৯ মার্চকে প্রতিরোধ দিবস ঘোষণার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিবেন।