Pages

Categories

Search

আজ- মঙ্গলবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

কাপাসিয়ায় স্ত্রী খুন, স্বামী গ্রেফতার

মে ১২, ২০১৭
শীর্ষ সংবাদ
No Comment

গাজীপুর দর্পণ রিপোর্ট : জেলার কাপাসিয়ায় শামীমা আক্তার (৩০) নামে এক গৃহবধুর স্বামীর ধারালো অস্ত্রের আঘাতে মৃত্যু হয়েছে।
এঘটনার পর তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে নিহতের স্বামী মো. হাবিবুর রহমানকে (৪০) ঢাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন কাপাসিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ আবু বকর সিদ্দিক।
বৃহস্পতিবার (১২ মে) রাতের কোন এক সময় কাপাসিয়া সদর উপজেলার জুনিয়া কাজী বাড়ি এলাকায় এই হত্যাকান্ড ঘটে। নিহতের স্বামী হাবিবুর তাকে ও দুই মেয়েকে নিয়ে ওই এলাকার রুহুল আমিনের বাড়িতে ভাড়া থেকে সদর এলাকায় একটি ওয়ার্কশপ (লোহার জিনিস তৈরীর) দোকান পরিচালনা করতেন।

নিহত শামীমা শ্রীপুর উপজেলার গোসিঙ্গা ইউনিয়নের নারায়ণপুর গ্রামের মৃত আহমদ আলীর মেয়ে। তাদের মাইসা (১০) ও লামিয়া (৭) নামের দুইটি কন্যা সন্তান রয়েছে। হাবিবুরের গ্রামের বাড়ি সাফাইশ্রী এলাকায়। তার বাবার নাম পাওয়া যায়নি।

কাপাসিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মনিরুজ্জামান জানান, সকালে বাড়ির মালিকের স্ত্রী ওই ঘরের লোকদের কোন সারা না পেয়ে ভাড়াটিয়ারা ঘরে তালা ঝুলিয়ে পালিয়েছে বলে পুলিশে খবর দেয়। পরে বিকেল ৪টার দিকে নিহতের লাশ উদ্ধার করে থানায় আনা হয়। বৃহস্পতিবার রাতের কোন এক সময় স্ত্রীকে হত্যাকরে ঘরের দরজা বন্ধ করে স্বামী পালিয়ে গেছে। পুলিশ লাশ উদ্ধার করতে গিয়ে ঘর তালাবদ্ধ পেয়েছে।

নিহতের মাথায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপানো হয়েছে। গলায় গামছা পেচানো অবস্থায় ছিল। এবং ঘাড়ের পিছনে চুলের গোড়ায় থেতলানো অবস্থায় রয়েছে বলে জানান তিনি।

তিনি বাড়ির মালিকের বরাত দিয়ে জানান, গতকাল বাচ্চাদের নানা বাড়িতে পাঠিয়ে দেয়া হয়েছিল। পরে রাতে এই হত্যাকান্ড ঘটিয়েছে।

কাপাসিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জানান, হত্যাকান্ডের পর পুলিশ তাৎক্ষণিক সব জায়গায় খবর দিয়ে বিশেষ অভিযানে তাকে ঢাকা থেকে আটক করে। গ্রেফতারকৃত হাবিবুরকে ঢাকা থেকে বিশেষ ব্যবস্থায় কাপাসিয়ায় আনা হচ্ছে। এবিষয়ে আরো বিস্তারিত পরে জানানো হবে।
নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দিন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে।