Pages

Categories

Search

আজ- সোমবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮

কাপাসিয়ায় আটক ৯ ডাকাতকে গণপিটুনি


গাজীপুর দর্পণ রিপোর্ট : গাজীপুর জেলার কাপাসিয়া উপজেলার বড়জোনা ও বরুন গ্রামে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে ৯ ডাকাতকে আটক করে গণপিটুনীর পর পুলিশে দিয়েছে গ্রামবাসী। এ সময় ডাকাতদের হামলায় গৃহকর্তা চান মিয়া ওরফে চানু বেপারী (৬৫), তার ভাই হেলাল মিয়া (৪৭) ও তার স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৪৫) এবং গ্রামবাসীর হামলায় ডাকাতরা আহত হয়েছেন।
আহতদের কাপাসিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে কাপাসিয়া থানার এস আই দুলাল মিয়া।
প্রতিবেশী দুলাল মিয়া জানান, রাত দেড়টার দিকে বড়জোনা এলাকার চানু বেপারীর বাড়ির কলাপসিবল গেইট কেটে এবং দরজা ভেঙ্গে বসত ঘরে ঢুকে। এসময় বাধা দিলে ডাকাতদের হামলায় চানু মিয়া, তার স্ত্রী ও ভাই হেলাল আহত হন। পরে ডাকাতরা মালামাল লুটে পালিয়ে যাওয়ার সময় চানু মিয়া ডাকা-চিৎকার দেয় এবং মোবাইল করে তার স্বজনদের ও পুলিশে খবর দেয়। এলাকাবাসী তিলসুনিয়া এলাকায় পালানোর রাস্তায় বেরিকেড দিয়ে ডাকাতদের গাড়ির গতিরোধ করে এবং প্রথমে সাতজন এবং পরে এলাকায় অভিযান চালিয়ে আরো দুইজন ডাকাতকে ধরে গণপিটুনী দেয়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশ তাদের আটক করে এবং হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়।
কাপাসিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আব্দুস সালাম সরকার জানান, আহতদের মধ্যে গৃহকর্তা চানু বেপারীর বাম হাতে ধারলো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে। আর ডাকাত সদস্য তাজুল ইসলাম (২৫), সফিকুল ইসলাম (৩৫), সুলতান (২৫), মিলন (২৬), কবির (২৫), আলম (২৩) ও আলী হোসেনকে (২৬) প্রাথমিক চিকিৎসার পর পুলিশ থানায় নিয়ে গেছে।
কাপসিয়া থানার ওসি মো. আবু বকর জানান, শুক্রবার রাতে এবং সকালে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। আটকরা তাদের হেফাজতে আছে। আহতদের স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। দুপুর ১২টা পর্যন্ত ওই ঘটনায় কোন মামলা হয়নি। ডাকাতির কাজে ব্যবহৃত গাড়ি এবং ডাকাতির মালামাল জব্দ করা হয়েছে।